মঙ্গলবার, ১১ মে ২০২১, ০৪:১১ পূর্বাহ্ন

দুমকির পাঙ্গাশিয়া ইউনিয়নের আইকন “জনগনের বন্ধু” চেয়ারম্যান সিকদার আলমগীর।।

Md.Minhajul Islam
  • Update Time : শনিবার ৭ নভেম্বর, ২০২০
  • ১৮৬৯ বার পঠিত

গাজী আসাদুজ্জামান রাকিব (পটুয়াখালী থেকে ফিরে)।। দুমকি উপজেলার ১নং পাঙ্গাশিয়া ইউনিয়নের সদা হাস্যজ্জল মানুষ সিকদার আলমগীর হোসেন। ইতিমধ্যে তিনি বার বার নির্বাচিত ইউপি চেয়ারম্যান হিসেবে এলাকাবাসীর কাছে আস্থার প্রতিক হিসেবে পরিচিত লাভ করেছেন এই মানুষটি। আদর্শ ও ন্যায় নীতির মধ্যে থেকে এলাকার মানুষের পাশে থাকাই এ মানুষটির লক্ষ্য। কোন কিছুর লোভ লালসা আর হিংসা তাকে আক্রমণ করতে পারেনি। এসব কারণেই এলাকার অনেকেই প্রশংসা করেন তার।
পাঙ্গাশিয়া ইউনিয়ন দুমকি উপজেলা আওয়ামীলীগের থানা কমিটির সদস্য ও ইউপি চেয়ারম্যান হিসেবে একযুগের বেশি সময় তিনি ধরে তার সাংগাঠনিক সকল কার্যক্রম অত্যন্ত দক্ষতা ও সুনামের সাথে দায়িত্ব পালন করে অাসছেন। গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে থেকে এলাকার সাধারণ মানুষের মন জয় করেন সিকদার আলমগীর । ধর্ম ভিরু এই নেতা প্রায় সকল শ্রেণি পেশার মানুষের নয়ন মনি-বিশেষনে অভিসিক্ত। পিতার ন্যায় নীতি অনুসরণ করে প্রতিনিয়ত এগিয়ে চলছেন এই প্রজ্ঞাবান নেতা।

স্থানীয়রা জানান, ছোটবেলা থেকেই তিনি মানুষের দু:খ দুর্দশায় নিজেকে সর্বদা ব্যস্ত রাখতেন। বিবেকের ব্যাকুলতায় যখন যেভাবে পারতেন অসহায়দের পাশে দাড়িয়ে বাড়িয়ে দিতেন সহয়তার কোমল দু’হাত। মানুষের দু:খ-দুর্দশা লাঘবের অক্রিতিম বিবেক বোধ মুক্তিযুদ্ধের চেতনা দেশত্ববোধের গভিরতার টানে তিনি নিজেকে জড়িয়েছেন আওয়ামী লীগের রাজনীতিতে।

জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর আদর্শিক রাজনীতি মিশে আছে তার হৃদয়। ইউনিয়ন চেয়ারম্যান দায়িত্ব গ্রহণের পর থেকেই শাসন শোষনের বৈসম্যের অবসান ঘটিয়ে সন্ত্রাস, মাদক ও জঙ্গীমুক্ত ইউনিয়ন গড়ার লক্ষ্যে তিনি অক্লান্ত পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। অত্যন্ত সুনামের সহিত দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি রাজনৈতিক সকল কর্মকান্ডে প্রশংসনীয় ভূমিকা থাকায় উপজেলা নেতাদের মন করেছেন তিনি। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দিক নির্দেশনায় দলীয় সকল কার্যক্রম এর পাশাপাশি ইউনিয়নের সরকারের গৃহীত উন্নয়নমূলক কর্মকান্ডে অগ্রণী ভূমিকায় দেখা যায়। ইউনিয়ন বাসির সেবার পাশাপাশি প্রত্যেকটি ওয়ার্ তৈরি করেছেন রাজনৈতিক জনপ্রিয়তার শক্তবলায়। দিনের শুরু থেকে গভীর রাত পর্যন্ত ভক্ত অনুসারী এবং নেতা-কর্মীদের সুখ দুঃখের খবর নেন তিনি। অনেক বাধা-বিপত্তি এসেছে কিন্তু নিজে কখনো বঙ্গবন্ধুর আদর্শ থেকে বিচ্যূত হননি। এগিয়ে চলছেন সব প্রতিবন্ধকতাকে পেছনে ফেলে। রাজনৈতিক অঙ্গনে কাজ করতে গিয়ে দলের নেতাকর্মী ও সমর্থকদের তিনি প্রিয় ইউনিয়ন বাসির স্নেহ-ভালোবাসা পেয়ে ধন্য হয়েছেন ধন্য। ইতিমধ্যে করোনা পরিস্থিতি মোকাবেলায় সরকারের দেয়া বিভিন্ন কর্মসূচি বিশেষ ওএমএস, ত্রান, কার্ডের মাধ্যমে চাউল, প্রধান মন্ত্রীর দেয়া উপহারসহ বিভিন্ন কার্যক্রম সুনামের সহিত জনসাধারণের মাঝে বিতরণ করেছেন। এই করোনা পরিস্থিতিতে কর্মহীন হয়ে পড়া অনেক পরিবারের মাঝে নিজ সামর্থ্য অনুযায়ী সহযোগিতাও করেছেন। পাঙ্গাশিয়া ইউনিয়ন এর সর্বস্তরের জনগণ এখন সুন্দর ও শান্তিপূর্ণভাবে বসবাস করছে।
পাঙ্গাশিয়া ইউনিয়ন এর সর্বস্তরের জনসাধারণের প্রাণের দাবী আগত ইউপি নির্বাচনে সিকদার আলমগীর ভাইকে তারা বিপুল ভোটে চেয়ারম্যান হিসেবে দেখতে চান। জননেত্রী শেখ-হাসিনার
দিক নির্দেশনায় পাঙ্গাশিয়া ইউনিয়ন এর প্রত্যেকটি ওয়ার্ডে যথাযথ নাগরিক অধিকার নিশ্চিত করতে প্রাণপণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি। ওয়ার্ডের প্রতিটি নাগরিক সেবা দ্রুততার সাথে দেয়ার চেষ্টা করে যাচ্ছি, তবে সুশৃঙ্খল ও সুন্দরভাবে সকলকে গ্রহণের জন্য সবার প্রতি আমার আহবান ও সবাই সবসময় সহযোগিতা করবেন যাতে আমি সারাজীবন আপনাদের পাশে থেকে উন্নয়ন মূলক প্রতিটি কাজ ইউনিয়ন বাসির জন্য করতে পারি

Please follow and like us:

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..