শনিবার, ০২ Jul ২০২২, ০২:৫২ পূর্বাহ্ন

News Headline :
তাড়াশে দলিলকৃত জায়গা জোরপূর্বক দখল করার অভিযোগ পদ্মা সেতু দেখতে গেছেন স্বামী, বউ-শাশুড়িকে প্রেমিকের সঙ্গে ধরলেন জনতা প্রকাশিত সংবাদের প্রতিবাদ পদ্মা সেতু উদ্বোধন উপলক্ষে তাড়াশে মুক্তিযোদ্ধা সন্তানদের মিলন মেলা অনুষ্ঠিত পদ্মা সেতু উদ্বোধন উপলক্ষে তাড়াশে আনন্দ মিছিল ও মিষ্টি বিতরণ তাড়াশে আওয়ামীলীগের ৭৩তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী পালিত তাড়াশে মাদক সেবন করে মাতাল অবস্থায় ছাত্রদলের নেতা আটক তাড়াশে আওয়ামীলীগের বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত অসুস্থ তফেরের পাশে উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন খাঁন সারাদেশে বিএনপির অরাজকতার সৃষ্টির প্রতিবাদে তাড়াশে ছাত্রলীগের বিক্ষোভ মিছিল

অপরাধ নির্মূলে জিরো টলারেন্স ঘোষনা করেছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা :এমপি শাওন

মোঃ সাইফুল ইসলাম আকাশ, নিজস্ব প্রতিবেদক:
  • Update Time : রবিবার ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২০
  • ২৪৮ বার পঠিত

মুজিব বর্ষের অঙ্গীকার, পুলিশ হবে জনতার শ্লোগানকে সামনে রেখে মাদক, জঙ্গী, ইভটিজিং, বাল্যবিবাহ, সাইবার ক্রাইমসহ সামাজিক অবক্ষয় প্রতিরিাধে বিট পুলিশিং সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। ভোলার লালমোহন থানার আয়োজনে লালমোহন থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ মাকসুদুর রহমান মুরাদের সভাপতিত্বে ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ ইং সকালে থানা ভবনের নিচতলায় এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন ভোলা-৩ (লালমোহন-তজুমদ্দিন) এর সংসদ সদস্য আলহাজ্ব নূরুন্নবী চৌধূরী শাওন।
প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে বলেন রাষ্ট্রের প্রধান দায়িত্ব হলো আইন প্রনয়ন করা। সরকার দেশের মানুষের জন্য আইন প্রনয়ন করবে এবং জনগন সে আইন মেনে চলবে। কেউ ব্যত্যয় ঘটালে আইনশৃঙ্খলা বাহিনী তা প্রতিরিাধ করবে। মাদকের বিরুদ্ধে সরকারের পক্ষ থেকে জিরো টলারেন্স ঘোষনা করেছেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী। লালমোহন-তজুমদ্দিনও মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষনা করা হলো। অপরাধ নির্মূলে বঙ্গবন্ধুর শেখ মুজিবুর রহমানের আদর্শে জননেত্রী প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জিরো টলারেন্স নীতি বাস্তবায়নে সফল হয়েছেন।
ভোলা ৩ আসনের এমপি নুরুন্নবী চৌধুরী শাওন আরও বলেন ২০০১ সালে এই এলাকায় ছিল অপরাধীদের অভয়ারন্য। লালমোহনের কার্ড দিয়ে চাঁদাবাজী করা হতো। তখনকার যুবদল, ছাত্রদল, বিভিন্ন ক্লাব ও বীরবিক্রম বাহীনীর নামে। এই এলাকার মানুষ তখন অপরাধীদের কাছে ছিল অসহায়। ছিল না কোন ন্যায় বিচার। আমি প্রথম যখন এই এলাকায় নির্বাচন করতে এসেছি তখন আপনাদেরকে কথা দিয়েছিলাম আমি নির্বাচিত হতে পারলে কোন চাঁদাবাজকে এই লালমোহন-তজুমদ্দিনে বুক উচিয়ে চলতে দিব না। আমি সেই কথা রেখেছিলাম এখন এখানে কোন চাঁদাবাজ নেই। নেই কোন সন্ত্রাসী সংগঠন। এখন লালমোহন-তজুমদ্দিনের মানুষ শান্তিতে বসবাস করছে। এখানে এখন সব রকম অপরাধ কমে আসলেও মাদক এখনও রয়ে গেছে। তাই মাদকের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষনা করা হলো। সে যে দলেরই হোক তাকে কোন রকম ছাড় দেয়া হবে না। পুলিশকে আপনারা অপরাধ দমনে সহযোগিতা করবেন। সকলের সহযোগিতায় আমরা লালমোহন-তজুমদ্দিনকে একটা পরিচ্ছন্ন ও অপরাধমুক্ত শহর হিসাবে দেখব।

অনুষ্ঠানে গেষ্ট অব অনার হিসাবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন ভোলা জেলা পুলিশ সুপার সরকার মোহাম্মদ কায়সার।

অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাসেলুর রহমান ,লালমোহন উপজেলার সকল বিদ্যালয় ও মাদরাসার প্রধান, স্কুল কলেজের ছাত্র/ছাত্রী, অভিভাবক, ইউপি চেয়ারম্যান, আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীসহ এবং প্রিন্ট ও ইলেকট্রিক মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ।

Please follow and like us:

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..