শুক্রবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২৩, ০৯:০৯ অপরাহ্ন

News Headline :
ফেসবুকে মিথ্যা অপপ্রচার করায় প্রতিবাদ ২৬ দিনেও তদন্ত শেষ হয়নি, উদ্ধার হয়নি আট লক্ষাধিক টাকার ওষুধ তাড়াশে এক দিনের ব্যবধানে আরেকজন স্কুল ছাত্রীর বাল্যবিয়ে বন্ধ করলেন ইউএনও রাজশাহীতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জনসভা সফল করার লক্ষ্যে তাড়াশে যৌথ কর্মীসভা তাড়াশে বাল্যবিয়ে বন্ধ করলেন ইউএনও নাটোর জেলা শ্রমিকলীগের সভাপতি হলেন সাইফুল ও সাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর তাড়াশে বিদ্যালয় খোলা, ছাত্রছাত্রী নেই! তাড়াশে মিথ্যা ও ভিত্তিহীন অপপ্রচার প্রতিবাদে ইউনিয়ন আ:লীগ ও সহযোগী সংগঠনের বিক্ষোভ মিছিল  সিরাজগঞ্জ জেলা পরিষদের প্যানেল চেয়ারম্যান হলেন তাড়াশের তাজফুল তাড়াশে চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে ব্যবসা প্রতিষ্ঠান জবর দখলের অভিযোগ

সুবর্ণচরে পরকিয়া প্রেমে বাধা দেয়ায় সন্ত্রাসী হামলায় আহত ৪

সময়ের সংবাদ ডেস্ক
  • Update Time : সোমবার ১৮ মে, ২০২০
  • ২০৫ বার পঠিত

রিয়াজ উদ্দিন রুবেল, সুবর্ণচর উপজেলা প্রতিনিধি:

সুবর্ণচর উপজেলার চর ওয়াপদা ইউনিয়নে পরকিয়া প্রেমে বাঁধা দেয়ায় সন্ত্রাসী হামলার ঘটনা ঘটে। হামলার ঘটনায় নারীসহ আহত হয় ৪ জন। ঘটনাটি ঘটে সুবর্ণচর উপজেলার ৪ নং চরওয়াপদা ইউনিয়নের ৬নং ওয়ার্ডের চর কাজি মোখলেছ গ্রামের মৃত (সফি নেতা) সফি উল্যাহর বাড়ীতে।

মামলার এজাহারে জানা যায়, চর কাজি মোখলেছ গ্রামের মৃত ওবায়দুল হকের পুত্র বেলাল উদ্দিন (২৬) দীর্ঘদিন ধরে একই গ্রামের মৃত সফি উল্যাহর পুত্র সেলিমের স্ত্রী তিন সন্তানের জননী শাহনাজকে যৌন হয়রানি করে আসছিল। ভুক্তভোগী সেলিম চট্রগ্রামে থাকার সুবাধে বিভিন্ন সময় বেলাল উদ্দিন শাহনাজকে কুপ্রস্তাব ও লোভ দেখায়। এতে সে রাজি না হলে বিভিন্ন সময় তাকে যৌন হয়রানি করে আসছিল।

এসব বিষয়ে সেলিম জানতে পেরে প্রতিবাদ করলে বেলাল ক্ষিপ্ত হয়ে ১৬ মে শনিবার দুপুর ২ টায় বেলাল উদ্দিন তার বড় ভাই জামাল উদ্দিন(৪০), বর্তমান ৬ নং ওয়ার্ড ইউপি সদস্য আজু মেম্বারের পুত্র ২টি হত্যা মামলা সহ একাধিক মামলার আসামি বাবুল(২৮), ছায়েদুল হকের পুত্র রাজন (৩৫), আব্দুর রহিমের পুত্র রহমান(২২), খলিল উদ্দিন ২৫ (পিতা অজ্ঞাত), সেলিমের পুত্র মাসুম (২৬), সাতাস দ্রোন গ্রামের আমির হোসেনের পুত্র আরিফ(৩০) সহ ৪/৫ জনের অজ্ঞাত সন্ত্রাসী দেশীয় অস্ত্রসস্ত্রসহ ভুক্তভোগী সেলিমের বাড়ীতে গিয়ে সেলিমকে এলোপাতাড়ি পিটিয়ে ও কুপিয়ে আহত করে।

খবর পেয়ে সেলিমের পুত্র এবং ছোট ভাই মাঈন উদ্দিন (৩৮), আহসান উল্যাহ (৪০) এবং মাঈন উদ্দিনের স্ত্রী বিবি জয়নব (৩৪) এগিয়ে এলে উপরোক্ত সন্ত্রাসীরা তাদেরকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে রক্তাক্ত আহত করে। এক পর্যায়ে মাঈন উদ্দিন আত্নরক্ষার্থে প্রতিবেশী নোমানের বাড়ীতে আশ্রয় নেয় সেখানেও সন্ত্রাসীরা মাঈন উদ্দিনকে কুপিয়ে অজ্ঞান করে পেলে যায়। প্রতিবেশী নোমানের বাড়ীতে ব্যাপক হামলা, ভাংচুর এবং লুটপাট করে। এসময় নোমানের স্ত্রী হোসনেয়ারা বাঁধা দিলে তাকেও মারধর করে এবং তার ঘরে থাকা নগদ টাকা এবং মালামাল নিয়ে চলে যায়।

এলাকাবাসী আহতদের উদ্ধার করে সুবর্ণচর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে (করোনার কারনে লকডাউন করায়) পাশবর্তী ক্লীনিক থেকে প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে বাড়ীতে নিয়ে আসে।

ভুক্তভোগি সেলিম অভিযোগ করে বলেন, আমার কর্মক্ষেত্র চট্রগ্রাম হওয়ার সুবাধে ওবায়দুল হকের পুত্র বেলাল উদ্দিন দীর্ঘদিন ধরে আমার স্ত্রী শাহনাজকে যৌন হয়রানি করে আসছে, সম্প্রতি আমি বাড়ীতে এলে সব শুনে এর প্রতিবাদ করি এজন্য তারা পরিকল্পিতভাবে আজু মেম্বারের সন্ত্রাসী পুত্র ২টি খুনের মামলা ও একাধিক মামলার আসামী বাবুলসহ স্থানীয় সন্ত্রাসীরা আমাদের পরিবারের ওপর বর্বর হামলা চালায়।এই সন্ত্রাসী বাবুল ও বেলাল গ্রুপের ভয়ে এলাকায় কেউ তাদের সন্ত্রাসী কার্যক্রমের বিরুদ্ধে কথা বলতে সাহস করে না।কেউই কথা বললেই তাকে হতে হয় হেনস্থা বা এলাকা ছাড়া। তাদের ভয়ে একাধিক মানুষ এখন এলাকা ছাড়া। চরজব্বার থানায় একটি এজাহার দায়ের করেছি। ঘটনার বিষয়ে সুষ্ঠ তদন্ত করে অভিযুক্তদের দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তি দাবী করছি।

এলাকাবাসী বলেন, বর্তমানে চর ওয়াপদা ইউনিয়নের ০৬ নং ওয়ার্ডের সদস্য আজু মেম্বারের ছেলে বাবুল দীর্ঘদিন ধরে তার সাঙ্গপাঙ্গ নিয়ে এলাকায় ত্রাসের রাজত্ব কায়েম করে আসছে। ইতিপূর্বে ইভটিজিং ও অপহরণ মামলায় জেলে গিয়ে কৌশলে জামিনে এসেছে বাবুল। তার বাবা বর্তমান মেম্বার বলে ভয়ে এলাকার কেউ মুখ খুলেনা। বাবুলের বিরুদ্ধে ২টি খুনের মামলা সহ একাধিক মামলা রয়েছে, জিআর মামলা নং ৫৬০/২০১৭(খুনের মামলা), জিআর ৩৬/২০১৯ (হত্যার উদ্যেশ্য হামলা) এবং সিআর১৮১/২০১৩ মামলা রয়েছে।এমনকি আপন ভগ্নিপতিকেও হত্যার অভিযোগ বাবুলের বিরুদ্ধে।এছাড়াও এলাকায় মদ,গাঁজা ও ইয়াবা সেবন ও ব্যবসার সাথে জড়িত এই সন্ত্রাসী গ্রুপ। প্রতিবেদক আজু মেম্বারের সাথে মুঠো ফোনে আলাপ কালে তিনি বলেন, ছেলেটা আমার কথা শুনে না।

৪নং চরওয়াপদা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান মনির আহমেদ বলেন, আজু মেম্বারের ছেলে বাবুলের বিরুদ্ধে তার ভগ্নীপতিকে খুনের অভিযোগে একটি হত্যা মামলাসহ ৩/৪ টি মামলা রয়েছে, এরা কেউ বিচার শালিস মানেনা,এধরনের মারধরের বিষয়ে একাধিকবার থানায় বিচার শালিস হয়েছে।

চরজব্বার থানার ওসি (তদন্ত) ইব্রাহিম খলিল বলেন, ভুক্তভোগিরা থানায় এসেছে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

ভুক্তভোগি সেলিম, মাঈন উদ্দিন, জয়নব বিবি বর্তমানে অনিরাপত্তায় দিনাতিপাত করছেন এবং প্রাণহানীর আশংকা করছেন। ভুক্তভোগীরা ও শান্তিপ্রিয় এলাকাবাসী এই ন্যাক্কারজনক পরকীয়া প্রেমে বাধা পরবর্তী হত্যার উদ্দেশ্যে সন্ত্রাসী হামলার উপযুক্ত বিচারের দাবীতে নোয়াখালী জেলা পুলিশ সুপার,জেলা প্রশাসক ও চরজব্বার থানার ওসি সাহেদ উদ্দিনসহ সংশ্লিষ্ঠ প্রশাসনের দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন।

Please follow and like us:

নিউজটি শেয়ার করুন


এ জাতীয় আরো খবর..